সোমবার, ১৭ জুন ২০২৪, ০৩:৫৬ অপরাহ্ন

উদ্ধারকৃত ৩৬৭ পিচ ইয়াবা ট্যাবলেট মামলার পলাতক আসামী গ্রেফতার”

রাজশাহী ব্যুরোঃ-গত ২৬/০৩/২০২২ তারিখ দিবাগত ভোর রাতে কাশিয়াডাঙ্গা পুলিশ বক্সের ইনচার্জ, এসআই (নিঃ)/এস.এম মানিক মাহমুদ ও কাশিয়াডাঙ্গা থানার এসআই (নিঃ)/মোঃ শাহীনুর ইসলাম সঙ্গীয় ফোর্সসহ কাশিয়াডাঙ্গা থানাধীন ফেরতাপাড়া সংলগ্ন ধুতরাবন এলাকা হইতে আসামী মোঃ মোরশেদুল ইসলাম (২৯), পিতা-মৃত মুনতাজ আলী, গ্রাম-ধুতরাবন, থানা-দামকুড়া, রাজশাহী এর বাড়ীতে অভিযান পরিচালনা করে ৩৬৭ পিচ ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করেন। অভিযান চলাকালে আসামী সু-কৌশলে পালিয়ে যায়। এ সংক্রান্তে কাশিয়াডাঙ্গা থানায় নিয়মিত মামলা রুজু হলেও এই সংক্রান্ত বিষয় আসামীর বউ ও মা কে থানায় নিয়ে আসে রাত্রি ৩ টার সময় নিয়ে আসলেও পরে রহস্যজনক কারণে তাদের সকাল ১১.৩০ মিনিটে ছেড়ে দেয় কাশিয়াডাঙ্গা থানা ছেড়ে দেওয়ার পরপর বিভিন্ন নিউজপোটাল থেকে নিউজ হয়। এবং ব্যাপক সমালোচনার ঝড় ওঠে কাশিয়াডাঙ্গা থানার বিরুদ্ধে। সেই দুর্ধর্ষ মাদক কারবারি কে আজ আটক করতে পেরেছে পুলিশ। পুলিশ মামলার তদন্তকারী অফিসার কাশিয়াডাঙ্গা থানার এসআই (নিঃ)/মোঃ মিজানুর রহমান, পলাতক আসামীকে গ্রেফতারে অভিযান অব্যহত রাখেন এবং তিনি দামকুড়া থানা পুলিশের সহায়তায় ইং ৩০/০৩/২০২২ তারিখে দামকুড়া থানাধীন ধুতরাবন এলাকা হতে আসামীকে গ্রেফতার করেন।উল্লেখ থাকে যে এই আসামে অনেক দ্রুত ও চতুর তার একটা সিন্ডিকেট আছে। এর পিছনে নেপথ্য কারণ কারা যেসব মাদক ব্যবসায়ী গডফাদার সে গুলোকে ধরার অভিযান অব্যাহত রাখার জন্য এলাকাবাসীর দাবি জানায়। এই আসামি মাদকসহ চাঁদাবাজি মামলা রহিয়াছে, সে নিজেকে বাঁচাতে পুলিশের দামকুড়া থানা এলাকায় সোর্স হিসেবে কাজও করে থাকে।তবে অনেক জল্পনা-কল্পনার পর ও মাদকে সয়লাব রাজশাহী একটা নিউজ খবর ২৪ ঘন্টায় প্রচারের পর পুলিশ নড়েচড়ে বসে।এবং চতুর আসামি কে ধরতে সক্ষম হয় পুলিশ। এমনই অভিযান অব্যাহত থাকবে বলে রাজশাহী বাসী আশা করে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


ফেসবুক পেজ
ব্রেকিং নিউজ